সুদানে সংঘর্ষে ১৬৮ মৃত্যু

82


আন্তর্জাতিক ডেস্ক

সুদানের যুদ্ধবিধ্বস্ত দারফুরের পশ্চিমাঞ্চলীয় শহর ক্রেনিকে গোষ্ঠীভিত্তিক সংঘর্ষে অন্তত ১৬৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই ঘটনায় ৯৮ জন আহত হয়েছে বলে স্থানীয় একটি সূত্রের বরাতে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

ব্যক্তিগত বিবাদের জেরে আরব যাযাবর ও মাসালিত কৃষকদের মধ্যে সহিংসতা বাধে বলে একাধিক বেসরকারি সংস্থা জানিয়েছে।

এ শতকের শুরুর দিকে আরব মিলিশিয়া ও সুদানের সরকারি বাহিনীর সঙ্গে বিদ্রোহীদের সংঘাতে বাস্তুচ্যুত অসংখ্য মানুষের বাস ওই অঞ্চলে আশ্রয় নিয়ে আছেন। যাযাবর ওই আরব মিলিশিয়ারা জানজাউইড নামে পরিচিত।

ওই সংঘাতে প্রায় ২৫ লাখ মানুষ উদ্বাস্তু হয়েছিল। মৃত্যু হয়েছিল তিন লাখ মানুষের। যুদ্ধাপরাধের অভিযোগে সুদানের সাবেক প্রেসিডেন্ট ওমর আল-বশিরের নামে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালত গ্রেফতারি পরোয়ানাও জারি করেছিল। এপ্রিল মাসের শুরুর দিকে আলি কুশাইব নামে পরিচিত বশিরের এক সহযোগীর বিচার শুরুও হয়েছে।

এদিকে, দ্য কোঅর্ডিনেশন কমিটি ফর রিফিউজি অ্যান্ড ডিসপ্লেসড পিপল অঞ্চলটিতে আন্তর্জাতিক শান্তিরক্ষী ফেরত পাঠানোর আহ্বান জানিয়েছে। ২০২০ সালের জানুয়ারিতে সেখান থেকে শান্তিরক্ষী প্রত্যাহার শুরু হয়।

বশির পরবর্তী অন্তর্বর্তী সরকার ও দারফুরে লড়াইরত কয়েকটি সশস্ত্র গোষ্ঠীর মধ্যে ২০২০ সালের অক্টোবরে চুক্তি হওয়ার পর থেকেই দারফুরে সহিংসতার মাত্রা বাড়তে দেখা যাচ্ছে। সংঘাতে কেবল ২০২১ সালেই চার লাখ ৩০ হাজারের মতো মানুষ বাস্তুচ্যুত হয়েছে, বলছে দাতা সংস্থাগুলো।

সারাবাংলা/একেএম





Source link