সবুজের মধুবিলাস

0
301

এস. বি. রতনঃ
সুন্দরবনের কোল ঘেষে থাকা চায়া সুনীবিড় উত্তর কলাবাগী গ্রামের দুরন্ত দস্যি ছেলেটার হঠাৎ পা দুটো থমকে দাঁড়ালো। অবচেতন জীবন খাতার অংকগোলোর যোগ-বিয়োগে যখন শুধু শূণ্য খঁজে পেল তখন তার হুশ ফিরে এল। ত্রুণ্যের উদ্দীপনায় সে ঘোর ছেড়ে বাস্তবতায় ফিরে এল। এবার সে যৌবন উদ্দীপ্ত কর্মদীপ্ত এক যুবক। শপথ নিল শুদ্ধতার।

বলছিলাম “আমাদের সুন্দরবন” এর সত্বাধীকারী সারাফাত হোসেন সবুজের কথা। তিন ভাই বোনের মধ্যে সবার ছোট সবুজ দুরন্তপনা ছেড়ে আবার সে দ্বায়িত্বশীল। এখন সে স্বপ্ন দেখে নির্ভেজাল এক গতিময় জীবনের।
সবুজ বলেন, “মুলত আমার দুরন্তপনায় শিকল পড়িয়ে দ্বায়িত্বশিল করে এই তরুণ উদ্যোক্তা গ্রুপ। গ্রুপ এডমিন মাসুদুর রহমান ভাইয়ের উপদেশ আজ আমি স্বপ্ন দেখতে শুরু করেছি। বুকে সাহস নিয়ে সুন্দর বনের খাঁটি মধু নিয়ে কাজ শুরু করেছি। তরুণ উদ্যোক্তা গ্রুপের পজিটিভ ক্যাম্পেইন – ২০২০ এর লিডার এস. বি. রতন দাদার দিক নির্দেশনায় কাজ করে যাচ্ছি। গ্রুপের সকল এডমিন ও মোডারেটরের সার্ভিক সহযোগিতায় ব্যবসা এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছি”।
সুন্দর বনের মধু সংগ্রহের প্রক্রিয়া সম্পর্কে জানতে চাইলে সবুজ বলেন, সুন্দরবনে মধু সংগ্রহ দারুন চ্যালেঞ্জিং। যেকোন সময় বাঘের পেটে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। মৌয়ালরা একরকম জীবনের মায়া ত্যাগ করেই গহীন সুন্দরবনে মধু সংগ্রহ করে। আর আমি আমার কিছু নির্দিষ্ট বিশ্বস্ত মৌয়ালদের মাধ্যমে সুন্দরবন থেকে মধু সংগ্রহ করি। ফলে আমাদের প্রতিষ্ঠান “ আমাদের সুন্দর বন” এর মাধ্যমে সরবরাহকৃত মধু একশত ভাগ খাঁটি ও বিশুদ্ধ।
সারা দেশব্যাপী যতটুকু মধু উৎপাদিত হয়, মধুর চাহিদা তার চেয়ে অনেক বেশি। ফলে ক্রেতা সাধারণ কোনভাবেই ভেজালের বেড়াজাল টপকাতে পারছেন না। তরুণ উদ্যোক্তা গ্রুপের মাধ্যমে সারা দেশবাসীকে নির্ভেজাল মধু সরবরাহের যে শপথ সারাফাত হোসেন সবুজ গ্রহণ করেছে সেটি দায়িত্বের সাথে পালন করুক এই প্রত্যাশা আমাদের সকলের।

মতামত