সঞ্জয়-সালমানের বিয়ে কি অবশেষে…!

বিনোদন ডেস্কঃ প্রেমের গল্পের জন্য প্রায় দু’দশক পরে একসঙ্গে দেখা যাবে এই পরিচালক-অভিনেতা জুটিকে। ১৯৯৯ সালে ‘হম দিল দে চুকে সনম’ ছবিতে সলমন খানের সঙ্গে কাজ করেছিলেন বনশালী।

সঞ্জয় দত্ত নন, সঞ্জয় লীলা বনশালী। যিনি ২০২০-তে সালে ফের একবার জুটি বাঁধতে চলেছেন সলমন খনের সঙ্গে।প্রেমের গল্পের জন্য প্রায় দু’দশক পরে একসঙ্গে দেখা যাবে এই পরিচালক-অভিনেতা জুটিকে। ১৯৯৯ সালে ‘হম দিল দে চুকে সনম’ ছবিতে সলমন খানের সঙ্গে কাজ করেছিলেন বনশালী। তারপরে রণবীর কাপুর অভিনীত ‘সাওয়ারিয়া’ ছবিতে অতিথি চরিত্রে দেখা গিয়েছিল বলিউডের ভাইজানকে।

!-- Composite Start -->
Loading...

বনশালী প্রোডাকশনসের সিইও প্রেরণা সিং একটি বিবৃতিতে বলেন, ”সঞ্জয় লীলা বনশালীর ছবি নিয়ে একটা উত্তেজনা চলতেই থাকে দর্শকের মনে। যখন ফ্যানেরা মিরচি মিউজিক অ্যাওয়ার্ডে ‘পদ্মাবৎ’ সেরা অ্যালবামের তকমা পাওয়ার উল্লাসে মেতে উঠেছেন, তারই পাশাপাশি তাঁরা সঞ্জয়ের পরের ছবির জন্যও অপেক্ষারত। ‘হম দিল দে চুকে সনম’-এর ম্যাজিকের ১৯ বছর অতিক্রান্ত এবং আবার একসঙ্গে কাজ করতে চলেছেন সলমন-সঞ্জয়। একসঙ্গে একটি প্রেমের ছবি তৈরি করবেন এই জুটি।”

সম্ভবত সেপ্টেম্বরে ‘দাবাং থ্রি’-র শুটিং শেষ করার পরই এই ছবির কাজ শুরু করবেন সলমন। যদিও ছবির বাকি কাস্টিং এখনও ঠিক হয়নি, নির্মাতারা বলিউডের প্রথম সারির কোনও অভিনেত্রীকেই নায়িকা চরিত্রে ভাবছেন। ছবির সঙ্গীত পরিচালনা করবেন বনশালী নিজেই। ‘পদ্মাবত’-এর সাউন্ডট্র্যাকও নিজেই তৈরি করেছিলেন পরিচালক।

১৯৯৬ সালে ‘খামোশী: দ্য মিউজিক্যাল’ নামে সঞ্জয় লীলা বনশালীর প্রথম ছবিতে একসঙ্গে কাজ করেছিলেন সলমন খান ও বনশালী। বলিউডি বাণিজ্য-বিশেষজ্ঞ তরণ আদর্শও টুইট করে খবরটি জানিয়েছেন। এদিকে এপিক ড্রামা ‘ভারত’ নিয়ে এখন বেজায় ব্যস্ত সল্লুভাই। ছবিতে সলমন ছাড়াও রয়েছেন ক্যাটরিনা কাইফ, সুনীল গ্রোভার, তাব্বু, দিশা পাটানি। ৫ জুন মুক্তি পেতে চলেছে ভাইজানের ‘ভারত’।

মতামত দিন

Post Author: newsdesk

A thousand enemies is not enough; a single enemy is. There is nothing as a ‘harmless’ enemy.