শ্রীলঙ্কার জয়ে পয়েন্টের ঝুঁকিতে যে এশিয়ার দলগুলো

স্পোর্টস ডেস্কঃ বিশ্বকাপের পয়েন্ট টেবিলে প্রথম থেকেই রাজত্ব করছে চারটি দল অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ড, ইংল্যান্ড ও ভারত। শক্তিসামর্থ্য ও বাকি দলগুলোর পারফরমেন্স বিচারে তারাই সেমিফাইনালের টিকিটের অন্যতম দাবিদার ছিলো এতোদিন। লেগ পর্বের শেষ অংশে এসে সেই সহজ সমীকরণ উল্টেপাল্টে দেয়ার আভাস দিচ্ছে শ্রীলঙ্কা। শক্তিশালী ইংল্যান্ডকে হারিয়ে শক্ত প্রতিপক্ষ হিসাবেই আর্বিভূত হলো দলটি।
শক্তির বিচারে এবার একদমই আলোচনায় নেই ৯৬’এর চ্যাম্পিয়নরা। বরং তাদের ছোট শক্তি হিসেবেই দেখা হচ্ছিলো বিশ্বকাপের এই আসরে। নিজেদের পাঁচ ম্যাচ শেষে ৪ পয়েন্ট নিয়ে ছিলো বাংলাদেশের নিচে। আজ ইংল্যান্ডের সঙ্গে জয়ের পর ছয় ম্যাচ থেকে ছয় পয়েন্ট নিয়ে উঠে এসেছে টেবিলের পঞ্চম স্থানে। সামনে তিনটি ম্যাচ। প্রতিপক্ষ ভারত, দক্ষিণ আফ্রিকা ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ভারতকে বাদ দিলে বাকি দুই প্রতিপক্ষ এবার বেশ দুর্বল দল। সব মিলিয়ে যদি তিনটি ম্যাচে জয় পেয়েই যায় দিমুথ করুনারত্নের দল, তাহলে ১২ পয়েন্ট নিয়ে তারা সেমিফাইনালের টিকিট পেতেই পারে। এমনকি দুই ম্যাচের জয়েও মিলতে পারে টিকিট। সেক্ষেত্রে পতন হতে পারে নিউজিল্যান্ড কিংবা বিশ্বকাপ আসরের স্বাগতিক ইংল্যান্ডের। এই ম্যাচের হারে ছয় ম্যাচ থেকে আট পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষ চারে থাকলেও ইংল্যান্ডকে চোখ রাঙাবে পরবর্তী প্রতিপক্ষ অস্ট্রেলিয়া, ইন্ডিয়া ও টেবিলের দ্বিতীয়স্থানে থাকা নিউজিল্যান্ড। পাঁচ ম্যাচ থেকে ৯ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের দ্বিতীয়স্থানে থাকা কিউইদেরও থাকতে হবে পয়েন্ট হারানোর ঝুঁকিতে। কারণ তাদের সামনেও যে শক্ত প্রতিপক্ষ ওয়েস্ট ইন্ডিজ, পাকিস্তান, ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া।

আজ শুক্রবার লাসিথ মালিঙ্গার স্বমূর্তিতে ফেরার দিনে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে দুর্দান্ত এক জয় তুলে শ্রীলঙ্কা। টস হেরে প্রথমে ব্যাট করে প্রতিপক্ষকে মাত্র ২৩৩ রানের লক্ষ্য দিতে সক্ষম হয় লঙ্কানরা। সেই ছোট লক্ষ্যেই জোস বাটলার, জো রুট, ইয়ন মরগান ও বেন স্টোকদের আটকে ফেলেন মালিঙ্গা-ধনঞ্জয়ারা।

মতামত দিন

Post Author: newsdesk

A thousand enemies is not enough; a single enemy is. There is nothing as a ‘harmless’ enemy.