শিক্ষকের গলায় জুতার মালা: বাকবিশিসের প্রতিবাদ

47


সারাবাংলা ডেস্ক

চট্টগ্রাম ব্যুরো: নড়াইলে এক কলেজ অধ্যক্ষের গলায় জুতার মালা পড়ানোর ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলাদেশ কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি (বাকবিশিস)।

রোববার (২৬ জুন) গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে সংগঠনের কেন্দ্রীয় সভাপতি ড. নুর মোহাম্মদ তালুকদার ও সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর ঘটনায় জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছে।

বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়, মানুষের জানমালের রক্ষাকারী পুলিশের সামনে একজন সম্মানিত শিক্ষককে যেভাবে অসম্মান করা হয়েছে, তাতে শিক্ষক সমাজের সঙ্গে পুরো জাতি ব্যথিত, অপমানিত। এ ধরনের ঘটনা সমগ্র বিশ্বের শিক্ষক সমাজের মর্যাদার উপর সুস্পষ্ট আঘাত। এ ঘটনা সরকারের সব ইতিবাচক কর্মকাণ্ডকে কলঙ্কিত ও পুলিশ বাহিনীর ভূমিকাকে প্রশ্নবিদ্ধ করার সামিল।

বিবৃতিতে ধর্মীয় সংবেদনশীল বিষয়গুলোকে ইস্যু করে বাংলাদেশের সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্টকারীদের বিষয়ে সরকারকে সতর্ক থাকার আহ্বান জানিয়েছে বাকবিশিস।

এর আগে, বিতর্কিত মন্তব্যের জন্য সমালোচনায় থাকা ভারতের বিজেপি নেত্রী নূপুর শর্মার ছবি দিয়ে ফেসবুকে নড়াইলের কলেজের এক ছাত্রের পোস্টকে কেন্দ্র করে এই ঘটনা।

স্থানীয়দের ভাষ্য অনুযায়ী, গত ১৭ জুন নড়াইলের সদর উপজেলার মির্জাপুর ইউনাইটেড কলেজের ওই ছাত্র ওই পোস্ট দেওয়ার পরদিন কলেজে গেলে কিছু মুসলমান ছাত্র তাকে ওই পোস্ট মুছে ফেলতে বলেন।

ওই সময় ‘অধ্যক্ষ ওই ছাত্রের পক্ষ নিয়েছেন’— এমন কথা রটানো হলে উত্তেজনা তৈরি হয়। অধ্যক্ষ ও দু’জন শিক্ষকের মোটরসাইকেল পুড়িয়ে দেওয়া হয়। পুলিশ গেলে স্থানীয়দের সঙ্গে তাদেরও সংঘর্ষ বাঁধে।

ওই সময় ধর্ম অবমাননার অভিযোগ তুলে কলেজের ছাত্র ও স্থানীয়রা ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ স্বপন কুমার বিশ্বাসের গলায় জুতার মালা পরিয়ে দিয়েছিল। ওই ঘটনার কিছু ছবি ও ভিডিও ফেসবুকে আসে, যাতে পুলিশের উপস্থিতিও দেখা যায়।

সারাবাংলা/আরডি/টিআর





Source link