‘লকডাউন না মানলে গুলি করার নির্দেশ’

0
235

মহামারি করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে যারা লকডাউনের নির্দেশ অমান্য করবে তাদের গুলি করার নির্দেশ দিয়েছেন ফিলিপাইনের প্রেসিডেন্ট রদ্রিগো দুতার্তে।

দেশটির লুজন দ্বীপে এক মাসব্যাপী লকডাউন চলাকালীন ‘সমস্যা সৃষ্টিকারী’ যে কাউকে গুলি করার জন্য দেশটির পুলিশ এবং সেনাবাহিনীকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বলে সংবাদ প্রকাশ করেছে কাতারের সংবাদভিত্তিক টেলিভিশন চ্যানেল আল জাজিরা।

গতকাল বুধবার গভীর রাতে টেলিভিশনে জাতির উদ্দেশে দেওয়া ভাষণে রদ্রিগো দুতার্তে বলেন, ‘এটি সবার জন্য একটি সতর্কবার্তা । এই মুহূর্তে সরকারি নির্দেশ অনুসরণ করুন। কারণ আমাদের আদেশ অত্যন্ত জরুরি।’

তিনি আরও বলেন, ‘স্বাস্থ্যকর্মীদের ও ডাক্তারদের ক্ষতি করবেন না। কারণ এটি মারাত্মক অপরাধ। পুলিশ ও সেনাবাহিনীর প্রতি আমার আদেশ, যদি কেউ সমস্যা সৃষ্টি করে এবং তাদের জীবন ঝুঁকির মধ্যে পড়ে, তাদের গুলি করে হত্যা করুন।’

‘সরকারকে ভয় দেখাবেন না। সরকারকে চ্যালেঞ্জ করবেন না। আপনি হেরে যাবেন’, যোগ করেন রদ্রিগো দুতার্তে।

দুই সপ্তাহ ধরে চলা লকডাউনে সরকারি রিলিফ, খাবারের প্যাক এবং অন্যান্য ত্রাণ না পাওয়ায় বিক্ষোভ করে মুনিলার কুইজন সিটি বস্তির বাসিন্দারা। এই বিক্ষোভের কারণে গ্রাম সুরক্ষা কর্মকর্তা ও পুলিশ বাসিন্দাদের তাদের বাড়িতে ফিরে যাওয়ার আহ্বান জানালে তারা তা প্রত্যাখ্যান করে। এতে বিক্ষোভটি ছত্রভঙ্গ করতে সেনাবাহিনীর ধরপাকড়ের একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। এই ঘটনায় ২০ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

সফটওয়্যার সল্যুশন কোম্পানি ‘ডারাক্সে’র পরিসংখ্যানভিত্তিক ওয়েবসাইট ‘ওয়ার্ল্ডোমিটারে’ প্রকাশিত তথ্যমতে, ফিলিপাইনে এই প্রাণঘাতী ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে ২ হাজার ৩১১ জন, আর মৃত্যু হয়েছে ৯৬ জনের।

চীনের উহান থেকে ছড়িয়ে পড়া প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়েছে বিশ্বের ২০৩টি দেশ ও দুটি আন্তর্জাতিক প্রমোদতরীতে। ভাইরাসটির সংক্রমণে এখন পর্যন্ত প্রাণ হারিয়েছেন ৪৭ হাজার ২৪৯ জন। সারা বিশ্বে ৯ লাখ ৩৬ হাজার ২০৪ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। চিকিৎসা শেষে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১ লাখ ৯৪ হাজার ৫৭৮ জন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে