বিশ্বকাপ বাতিল করে আইপিএল? প্রশ্ন তুললেন ইনজামাম -Deshebideshe

0
53


ইসলামাবাদ, ১০ জুলাই- এবারের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ বাতিল কিংবা স্থগিত করে যদি আইপিএল আয়োজন করা হয়, তাহলে সেটা অনেক বড় প্রশ্নের জন্ম দেবে বলে মন্তব্য করেছেন পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক এবং সাবেক প্রধান নির্বাচক ইনজামাম-উল হক।

বিশ্বকাপ বাতিল করা হবে কি হবে না- তা নিয়ে এখনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানায়নি আইসিসি। যদিও খুব শিগগিরই সিদ্ধান্ত চলে আসার কথা এবং সেই সিদ্ধান্ত যে বিশ্বকাপ বাতিল করে দেয়ার, সেটা মোটামুটি নিশ্চিত। বিশেষ করে অস্ট্রেলিয়ায় নতুন করে করোনার ঢেউ সৃষ্টি হওয়া এবং এর জেরে মেলবোর্নকে ৬ সপ্তাহের লকডাউনের মধ্যে ঠেলে দেয়ায় সেটাই নিশ্চিত হয়ে গেলো।

তবুও, ইনজামাম-উল হক প্রশ্ন তুলে দিয়েছেন, বিশ্বকাপ বাতিল করে যদি আইপিএল আয়োজন করা হয়, তা নিয়ে। নিজের ইউটিউব চ্যানেলে ইজামাম বলেন, ‘হঠাৎ গুজব শোনা যাচ্ছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সূচি নাকি ভারতের ঘরোয়া টি-টোয়েন্টি লিগ আইপিএলের সূচির সঙ্গে সংঘর্ষ তৈরি করেছে? এবং একই সঙ্গে অস্ট্রেলিয়া-ভারত সিরিজও সময়ের সংঘর্ষ তৈরি করেছে বিশ্বকাপের সঙ্গে! বিশ্বকাপ হলে নাকি আইপিএল আয়োজন করা সম্ভব নয়? শোনা যাচ্ছে, বিশ্বকাপই নাকি বাতিল করে দেয়া হতে পারে?’

ইনজামাম উষ্মা প্রকাশ করে বলেন, ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের নিয়ন্ত্রণে সবকিছু। চাইলে তারা সব কিছুই করতে পারে। তিনি বলেন, ‘আইসিসিকে খুব শক্তহাতে নিয়ন্ত্রণ করে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড বিসিসিআই। যদি অস্ট্রেলিয়া বলে যে, করোনা মহামারির কারণে আমরা কোনোভাবেই বিশ্বকাপ আয়োজন করতে পারবো না, তখন সেটা বিবেচনায় নেয়া যায়। কিন্তু একই সময়ে যদি ক্রিকেটের অন্য কোনো ইভেন্ট অন্য কোথাও আয়োজন করা হয়, তখন এটা নিয়ে প্রশ্ন তৈরি হবেই।’

পাকিস্তানের হয়ে ১২০ টেস্টে ৮৮৩০ এবং ৩৭৮ ওয়ানডে খেলে ১১৭৩৯ রান করেন ৫০ বছর বয়সী ইনজামাম। তিনি বলেন, ‘মানুষ অবশ্যই ভাববে একটি দেশ ১২ অথবা ১৪টি দেশকে (মূলতঃ ১৬ দেশ) নিয়ে যদি একটি টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে পারে, তাহলে কেন আইসিসি সেটার দিকে তাকাবে না? বিশেষ করে অস্ট্রেলিয়ার মত একটি অগ্রসর দেশের পক্ষে তো বিশ্বকাপ আয়োজন করা সম্ভবই! অন্যদিকে, আইসিসির কোনোভাবেই একটি বিশ্বকাপের পরিবর্তে একটি দেশের ঘরোয়া লিগকে প্রাধান্য দেয়া ঠিক হবে না। তাহলে তো তরুণ খেলোয়াড়দের জোর করেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের পরিবর্তে ঘরোয়া লিগগুলোর দিকেই ঠেলে দেয়া হবে।’

যদিও সাবেক এই ক্রিকেটার মনে করেন, করোনা মহামারির এই সময়ে ১৬ দলের একটি ইভেন্ট আয়োজন করা সহজ কথা নয়। তিনি বলেন, ‘অস্ট্রেলিয়া যদি বলে যে, আমাদের পক্ষে ১৮ দলকে (১৬ দল হবে) নিয়ে টুর্নামেন্ট আয়োজন করা সম্ভব নয়, তাহলে তো কিছু করার নেই। যেমন পাকিস্তান দলকে ইংল্যান্ডে সব সুযোগ-সুবিধা দেয়া হচ্ছে। আইসোলেশনের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। কিন্তু ১৬টি দলকে তো একসঙ্গে এভাবে ম্যানেজ করা সম্ভব নয়।’

সূত্র: জাগোনিউজ

আর/০৮:১৪/১০ জুলাই





Source link

মতামত

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে