ফতুল্লায় মুখোশধারীদের এলোপাতাড়ি কোপে একজন নিহত গুরুতর আহত ৬

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় একদল মুখোশধারী সন্ত্রাসীর এলোপাতাড়ি কোপে শাকিল (৩০) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন।

এসময় আহত হয়েছে আরও অন্তত ৬ জন। শনিবার রাত ১১টার দিকে ফতুল্লার দেওভোগ হাশেম নগর এলাকায় এঘটনা ঘটে। নিহত শাকিল দেওভোগ পূর্বনগর এলাকার মৃত. আমান উল্লাহর ছেলে।

!-- Composite Start -->
Loading...

আহতরা হলেন, শাওন, সজিব ও শুভাষসহ আরও তিনজন। অন্যদের নাম তাৎক্ষনিক জানাযায়নি।

আহত শুভাষ জানান, তিনি শহরের ২নং রেলগেইট এলাকা থেকে নিজ বাড়ি বাংলাবাজার মোটরসাইকেল যোগে রাত ১১টায় ফেরার পথে দেওভোগ হাশেমনগর এলাকায় একদল মুখোশধারী যুবক পথরোধ করে এলোপাতারি কুপিয়ে আহত করে।

এসময় তার চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে আসলে তাদেরও সন্ত্রসীরা এলোপাতাড়ি কোপায়। সন্ত্রাসীদের কোপে ঘটনাস্থলেই শাকিল নামে শুভাষকে বাঁচাতে আসা ওই যুবক নিহত হন। তবে, কী কারণে সন্ত্রাসীরা এভাবে কুপিয়েছে তা জানা যায়নি।

এলাকাবাসী জানান, স্থানীয় সন্ত্রাসী চান্দু, নিক্সন, তুহিন ও তার কয়েক বন্ধু মুখোশ পড়ে সড়কে দাড়িয়ে ছিলো। তখন এক ব্যাক্তি মোটর সাইকেল চালিয়ে যাচ্ছিলো।

ওই সময় মোটরসাইকেলের লাইটের আলো দাড়িয়ে থাকা মুখোশধারী সন্ত্রাসীদের চোখে পড়ে। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে মোটরসাইকেল আরোহীর উপর প্রথমে তারা হামলা চালায়। পরে আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে তাদেরও কোপায় সন্ত্রাসীরা।

ফতুল্লা মডেল থানার ওসি আসলাম হোসেন জানান, সন্ত্রাসীদের হামলায় একজন নিহত হয়েছে আর আহত হয়েছে কয়েকজন। বিস্তারিত জানতে আমিসহ পুলিশের একাধিক টিম ঘটনাস্থলে রয়েছে। পরে বিস্তারিত জানানো হবে।

মতামত দিন

Post Author: bdnewstimes