পশ্চিমবঙ্গে মানুষের মধ্যে বিভেদ অভিযোগে কঙ্গনার বিরুদ্ধে এফআইআর

0
96

মুম্বাই, ০৩ মে– পশ্চিমবঙ্গে হিংসা আর অশান্তি ছড়ানোর চেষ্টা করছেন কঙ্গনা রানাউত। বিজেপিকে সমর্থন জানাতে গিয়ে পশ্চিমবঙ্গে মানুষের মধ্যে বিভেদ তৈরির চেষ্টা করছেন বলিউড অভিনেত্রী। এমন অভিযোগ তুলেই এবার কলকাতা পুলিশের দ্বারস্থ হাইকোর্টের আইনজীবী সুমিত চৌধুরী। ই-মেল মারফত ‘ক্যুইন’ কঙ্গনার বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করেছেন তিনি।

ঘটনার সূত্রপাত কঙ্গনার কয়েকটি টুইট নিয়ে। পশ্চিমবঙ্গে ভোটগণনার দিন অর্থাৎ গতকাল টুইটারে বাংলাদেশি আর রোহিঙ্গাদের মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সবচেয়ে বড় শক্তি হিসেবে ব্যাখ্যা করেছিলেন বি-টাউনের ‘কন্ট্রোভার্সি ক্যুইন’। শুধু তাই নয়, বাংলাকে কাশ্মীরের সঙ্গেও তুলনা করেন কঙ্গনা।

টুইটারে কঙ্গনা লেখেন, ‘বাংলাদেশি আর রোহিঙ্গারা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সবচেয়ে বড় শক্তি…, যা ট্রেন্ড দেখছি তাতে বাংলায় আর হিন্দুরা মেজরিটিতে নেই এবং তথ্য অনুযায়ী গোটা ভারতবর্ষের তুলনায় বাংলার মুসলিমরা সবচেয়ে গরীব আর বঞ্চিত। ভালো, আরেকটা কাশ্মীর তৈরি হচ্ছে।’ এই লেখার পরই ‘ইলেকশন ২০২১’ হ্যাশট্যাগ দেন তিনি।
নিজেকে বরাবর ‘দেশভক্ত’ হিসেবে দাবি করেছেন কঙ্গনা। সোশ্যাল মিডিয়ায় একাধিকবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির প্রশংসায় পঞ্চমুখ হন তিনি। দিল্লির কৃষক আন্দোলনের সময়ও মোদির পাশে দাঁড়িয়ে ক্ষুব্ধ কৃষকদের একহাত নেন।

সূত্র: সংবাদ প্রতিদিন, ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস
এম এন / ০৩ মে

Source link