ধানক্ষেতে ‘খুন হওয়া’ কিশোরের লাশ

71


স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

চট্টগ্রাম ব্যুরো: চট্টগ্রামের কর্ণফুলী উপজেলায় ধানক্ষেত থেকে এক কিশোরের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। পরিবারের দাবি, ওই কিশোর পেশায় অটোরিকশা চালক। অটোরিকশা ছিনতাইয়ের জন্য তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে।

পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য দু’জনকে আটক করেছে।

শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) বেলা ১২টার দিকে উপজেলার চরলক্ষ্যা ইউনিয়নের ৩ নম্বর ওয়ার্ডে ধানক্ষেত থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

মৃত মো. শাকিল (১৪) কর্ণফুলী উপজেলার শিকলবাহা ইউনিয়নের আসামিয়া পাড়া গ্রামের নাজিম উদ্দিনের ছেলে।

শাকিলের মামা মো. হারিস সারাবাংলাকে জানান, শাকিলের বাবা অসুস্থ। একমাত্র বোন স্কুলপড়ুয়া। সংসারের ভরণপোষণের জন্য শাকিল এলপি গ্যাসের সিলিন্ডার বিক্রির একটি দোকানে চাকরি নিয়েছিল। আর্থিক অনটন বাড়তে থাকায় দু’দিন আগে ওই চাকরি ছেড়ে সে উপজেলার ভেতরে অটোরিকশা চালানো শুরু করে।

‘শুক্রবার বিকেলে কয়েকজন তার অটোরিকশা ভাড়া করে নিয়ে যায়। এরপর রাতে সে আর ঘরে ফেরেনি। আজ (শনিবার) স্থানীয় লোকজন ধানক্ষেতে তার লাশ দেখে পুলিশকে খবর দেয়। তার অটোরিকশাটি পাওয়া যাচ্ছে না। যারা অটোরিকশা ভাড়া করেছিল, তারা ছিল ছিনতাইকারী। তারা শাকিলকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে অটোরিকশা নিয়ে গেছে’, বলেন হারিস।

কর্ণফুলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দুলাল মাহমুদ সারাবাংলাকে বলেন, ‘শাকিলের গলায় আঘাতের চিহ্ন আছে। শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে বলে আমাদের ধারণা। ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়েছে। পরিবারের যে অভিযোগ, সেটি আমরা তদন্ত করছি।’

এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য দু’জনকে আটক করা হয়েছে বলেও পুলিশ জানিয়েছে।

সারাবাংলা/আরডি/এমও





Source link