দেশে নাৎসিরাজ কায়েম হয়েছে: ফখরুল

76


স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: দেশে নাৎসিরাজ কায়েম হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। সোমবার (১৩ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় গণমাধ্যমে পাঠানো বিবৃতিতে তিনি এ অভিযোগ করেন।

খিলক্ষেত থানা বিএনপির কর্মী সম্মেলনে পুলিশি হামলা ও নেতাকর্মীদের গ্রেফতারের অভিযোগে এ বিবৃতি দেন মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

তিনি বলেন, ‘সরকার দেশ পরিচালনায় সীমাহীন ব্যর্থতা আড়াল করতে এবং ফ্যাসিবাদী শাসন অব্যাহত রাখতে বিএনপির বিরুদ্ধে দমন-পীড়নের স্টিমরোলার চালাচ্ছে। বিএনপির সাংগঠনিক কার্যক্রমেও প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করা হচ্ছে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীকে ব্যবহার করে।’

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘ফ্যাসিস্ট সরকারের কাছে গণতন্ত্র, মানুষের মৌলিক অধিকার ও আইনের শাসনের কোনো মূল্য নেই। চাল-ডালসহ নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যের মূল্য হু হু করে বাড়ছে। অথচ সেদিকে সরকারের কোনো ভ্রুক্ষেপ নেই। কিন্তু বিরোধীদলের কর্মসূচির ওপর হামলা ও নেতাকর্মীদের গ্রেফতার করতে সরকার সদা তৎপর।’

‘এরই ধারাবাহিকতায় গতকাল খিলক্ষেত থানার ১৭ নম্বর ওয়ার্ডের শান্তিপূর্ণ কর্মী সম্মেলন ও তথ্য ফরম বিতরণ অনুষ্ঠান থেকে বিএনপি কর্মী মাহফুজুর রহমান, আলাউদ্দিন সরকার টিপু, এম আনোয়ার হোসেন, সুলতান মাহমুদ, ইয়াসির আরাফাত, নাসির উদ্দিন, মনির হোসেন, মাহফুজ বাবু, লিটন ও রাসেলসহ ১০ জন নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ’- অভিযোগ মির্জা ফখরুলের।

তিনি বলেন, ‘বিএনপির নেতাকর্মীদেরকে এই ধরনের গ্রেফতারের হিড়িকে দেশে সম্পূর্ণভাবে নাৎসিরাজ কায়েম হয়েছে। বিরোধীদলের নেতাকর্মীদের গ্রেফতার যেন সরকারের চিরস্থায়ী কর্মসূচিতে পরিণত হয়েছে। সরকারের এধরনের অপকর্ম রোধে দলমত নির্বিশেষে সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে রুখে দাঁড়াতে হতে হবে। নইলে দেশ ও মানুষের ভবিষ্যৎ চরম সংকটে পড়বে।’

সারাবাংলা/এজেড/পিটিএম





Source link