খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে মুক্তিযুদ্ধকে ‘কলঙ্কিত’ করার অভিযোগঃ শুনানি ১লা অক্টোবর

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ মুক্তিযুদ্ধকে ‘কলঙ্কিত’ করার অভিযোগে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে করা মামলার অভিযোগ গঠন বিষয়ে শুনানির জন্য আগামী ১ অক্টোবর দিন ধার্য করা হয়েছে।

গতকাল মঙ্গলবার এ বিষয়ে শুনানির দিন ধার্য ছিল।
কিন্তু খালেদাকে হাসপাতাল থেকে আদালতে হাজির না করায় ও আসামি পক্ষে শুনানি পিছিয়ে দেওয়ার আবেদন করায় ঢাকার অতিরিক্ত মুখ্য মহানগর হাকিম শুনানির তারিখ পিছিয়ে দেন। ঢাকার কেরাণীগঞ্জের কেন্দ্রীয় কারাগারের সামনে স্থাপিত বিশেষ এজলাসে এই মামলার শুনানি চলছে।
মামলায় অভিযোগ করা হয়, ২০০১ সালে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে স্বাধীনতাবিরোধী যুদ্ধাপরাধী জামায়াতের সঙ্গে জোট করে নির্বাচিত হয়ে সরকারের দায়িত্ব গ্রহণ করের বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। তিনি রাজাকার-আলবদর নেতাদের মন্ত্রী-এমপি বানিয়ে তাদের বাড়ি-গাড়িতে স্বাধীন বাংলাদেশের মানচিত্র ও জাতীয় পতাকা তুলে দেন।
২০১৬ সালের ৩ নভেম্বর ঢাকা মহানগর হাকিম আদালতে প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে এই মামলাটি করে জননেত্রী পরিষদের সভাপতি এ বি সিদ্দিকী। আদালত ঘটনার তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য তেজগাঁও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে (ওসি) নির্দেশ দেন। ২০১৭ সালের ২৫ ফেব্রুয়ারি অভিযোগের সত্যতা পাওয়া গেছে বলে প্রতিবেদন দেন তেজগাঁও থানার পুলিশ পরিদর্শক মশিউর রহমান (তদন্ত)।
খালেদা জিয়া দুদকের দুটি মামলায় সাজাপ্রাপ্ত। বর্তমানে তিনি কারাগারে আছেন।
তবে চিকিৎসার জন্য তাঁকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে রাখা হয়েছে।

!-- Composite Start -->
Loading...
মতামত দিন

Post Author: newsdesk

A thousand enemies is not enough; a single enemy is. There is nothing as a ‘harmless’ enemy.