কুষ্টিয়ায় নিষিদ্ধ পলিথিন কারখানার সন্ধান

0
103

কুষ্টিয়া ব্যুরো: কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে অবৈধ ও নিষিদ্ধ পলিথিন কারখানার সন্ধান পেয়েছে জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা সংস্থা এনএসআইয়ের সদস্যরা। ইতোমধ্যে কারখানায় অভিযান শেষ করেছে আইনশৃক্সখলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা।

বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় উপজেলার চাঁদপুর ইউনিয়নের গোবরা এলাকায় একটি কারখানায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও ম্যাজিস্ট্রেট রাজীবুল ইসলাম খানের নেতৃত্বে এই অভিযান শুরু হয়। অভিযানে পরিবেশ অধিদপ্তর ও পুলিশ সদস্যরা সহযোগিতা করেছেন। অভিযানে অবৈধভাবে পলিথিন উৎপাদন,আমদানি ও বাজারজাতকরণের অভিযোগে কারখানা ও গোডাউনে অভিযান চালিয়ে কারখানাটি বন্ধ করে দিয়েছে উপজেলা প্রশাসন। অভিযান চলাকালীন কারখানা মালিককে পাওয়া যায়নি।
কুমারখালী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রাজীবুল ইসলাম খান জানান, জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা সংস্থা এনএসআই ও পরিবেশ অধিদপ্তরের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে এই অভিযান চালানো হয়। অভিযানে অবৈধভাবে পলিথিন উৎপাদন,আমদানি ও বাজারজাতককরণের অপরাধে বাংলাদেশ পরিবেশ সংরক্ষণ আইন ১৯৯৫ আওতায় কারখানাটি বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। কারখানা ও গোডাউন থেকে বিপুল পরিমাণ পলিথিন উৎপাদনের কাঁচামাল ও পলিথিন জব্দ করা হয়েছে। এ অভিযানে উপস্থিত ছিলেন,কুষ্টিয়া পরিবেশ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক আতাউর রহমান, কুষ্টিয়া জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা সংস্থা (এনএসআই) যুগ্ম পরিচালক ইদ্রিস আলী, (এনএসআই) সদস্য সাজ্জাদ হোসেন ও সুমন বর্মন।
উল্লেখ্য,বাংলাদেশ পরিবেশ সংরক্ষণ আইন ১৯৯৫ এর আলোকে ২০০২ সালে বাংলাদেশে পলিথিন নিষিদ্ধ করা হয়।