কাদের মির্জাকে দলীয় কার্যক্রম থেকে অব্যাহতি

0
89

নোয়াখালী, ২০ ফেব্রুয়ারি – দলীয় গঠনতন্ত্র পরিপন্থী কাজে জড়িত থাকার অভিযোগে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের ছোট ভাই এবং নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জের বসুরহাট পৌরসভার মেয়র আবদুল কাদের মির্জাকে সংগঠনের সব কার্যক্রম থেকে অব্যাহতি দিয়েছে নোয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগ। একই সঙ্গে চূড়ান্তভাবে বহিষ্কার করতে আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদে সুপারিশ করা হয়েছে।

শনিবার নোয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এ এইচ এম খায়রুল আনম চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক সাংসদ মোহাম্মদ একরামুল করিম চৌধুরী স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয়।

আরও পড়ুন : ‘শেখ হাসিনা ও খালেদা জিয়া দুইজনই মুক্তিযোদ্ধা’

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ‘বিগত কয়েক সপ্তাহ ধরে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও বসুরহাট পৌরসভার মেয়র আবদুল কাদের মির্জা দলীয় নেতা-কর্মীদের ওপর সন্ত্রাসী লেলিয়ে দিয়ে গুরুতর আহত করেছেন। তিনি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির নেতৃবৃন্দ ও নোয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ সম্পর্কে মিথ্যা, অশালীন ও আপত্তিকর বক্তব্য দিয়েছেন। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে লাইভে এসে সংগঠনবিরোধী অশোভনীয় মন্তব্য ও নেতা-কর্মীদের হুমকি দিয়েছেন। এসব অভিযোগে আবদুল কাদের মির্জাকে সংগঠনের সব কার্যক্রম থেকে অব্যাহতি দেওয়া হলো।’

এদিকে কাদের মির্জার ডাকে কোম্পানীগঞ্জ উপজেলায় শনিবার সকাল ছয়টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত হরতাল পালিত হয়। নোয়াখালী ও ফেনীর দুই সংসদ সদস্যের অপরাজনীতি বন্ধে ব্যবস্থা এবং নোয়াখালীর ডিসি, এসপি, কোম্পানীগঞ্জ থানার ওসি ও পরিদর্শক তদন্তকে প্রত্যাহারের দাবিতে সকাল-সন্ধ্যা এই হরতাল ডাকা হলেও ডিগ্রি পরীক্ষার কারণে দুপুর ১২টা পর্যন্ত করা হয়। শুক্রবার রাত সাড়ে নয়টায় বসুরহাট পৌরসভার মিলনায়তনে এক সংবাদ সম্মেলনে এই কর্মসূচি ঘোষণা করেন আব্দুল কাদের মির্জা।

সূত্র: বাংলাদেশ জার্নাল
এন এ/ ২০ ফেব্রুয়ারি

Source link