কাতারকে হারিয়ে কোয়াটার ফাইনালে মেসি-আগুয়েরেরা

স্পোর্টস ডেস্ক: কাতারকে হারিয়ে গ্রুপ রানার্সআপ হিসেবে কোপা আমেরিকার কোয়ার্টার ফাইনালে উঠেছে প্রতিযোগিতার দ্বিতীয় সর্বোচ্চ চ্যাম্পিয়নরা। পোর্তো আলেগ্রেতে রবিবার রাতে বি গ্রুপের শেষ রাউন্ডে ২-০ গোলে জিতেছে আর্জেন্টিনা। ম্যাচের তৃতীয় মিনিটে দারুণ দুটি সুযোগ পায় আর্জেন্টিনা। কিন্তু ২০ গজ দূর থেকে মেসি উড়িয়ে মারার খানিক পর ডি-বক্সে ফাঁকায় বল পেয়ে লক্ষ্যভ্রষ্ট শট নেন মার্তিনেস। পরের মিনিটেই প্রতিপক্ষের ভুলের সুযোগ কাজে লাগিয়ে এগিয়ে যায় আর্জেন্টিনা। নিজেদের ডি-বক্সে থেকে বল ক্লিয়ার করতে গিয়ে কাতারের এক ডিফেন্ডার বল তুলে দেন মার্তিনেসের পায়ে। নিচু শটে জাল খুঁজে নিতে কোনো ভুল করেননি ইন্টার মিলানের এই ফরোয়ার্ড। ২২ মিনিটে মেসির বাড়ানো বল ডি-বক্সে পেয়ে লক্ষ্যভ্রষ্ট শটে সমর্থকদের হতাশ করেন ম্যানচেস্টার সিটির ফরোয়ার্ড সের্হিও আগুয়েরো। ৩৯ মিনিটে আরো দুইবার সুযোগ নষ্ট করে আর্জেন্টিনার হতাশা বাড়ান মার্তিনেস। গোলরক্ষক বরাবর হেড করার কয়েক সেকেন্ড পর ছোট ডি-বক্সের মুখে বলে পা লাগাতে ব্যর্থ হন তিনি। প্রথমার্ধের শেষ দিকে প্রতিপক্ষের রক্ষণে কয়েকবার ভীতি ছড়ানো কাতার বিরতির ঠিক আগে সমতায় ফিরতে পারত। কিন্তু ডিফেন্ডার বাসামের ফ্রি-কিক পোস্টে লাগলে বেঁচে যায় আর্জেন্টিনা। ৬০ মিনিটে আবারও সুযোগ নষ্টের হতাশা যোগ হয় আর্জেন্টিনা শিবিরে। মেসির পাস ডি-বক্সে ফাঁকায় পেয়ে আগুয়েরোর নেওয়া শট একজনের পায়ে লেগে বাইরে চলে যায়। ৭২ মিনিটে এবার মেসি নিজেই পেনাল্টি স্পটের কাছে ফাঁকায় বল পেয়ে অবিশ্বাস্য ভাবে উড়িয়ে মারেন। ৮২ মিনিটে দিবালার পাস ধরে ডি-বক্সে ঢুকে কোনাকুনি শটে দূরের পোস্ট দিয়ে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন আগুয়েরো। এর আগে বাঁচা-মরার লড়াইয়ে প্রতিপক্ষের ভুলে ম্যাচের শুরুতেই আর্জেন্টিনাকে এগিয়ে দিলেন লাউতারো মার্তিনেস। শেষ দিকে ব্যবধান দ্বিগুণ করলেন সের্হিও আগুয়েরো। দুই গোলের লিড পেয়ে ম্যাচের বাকি সময় খুব একটা তৎপর দেখা যায়নি কোপা আমেরিকার ইতিহাসের অন্যতম সফল দলটিকে। উল্টো রেফারির সঙ্গে বাকবিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়েছিলেন পিজেল্লা। তবে সে দফায় কোনো ক্ষতি হয়নি। রেফারির শেষ বাঁশি বাজার সঙ্গে সঙ্গে স্বস্তির দেখা মেলে আর্জেন্টিনার ডাগআউটে। চলতি আসরে নিজেদের প্রথম ম্যাচে কলম্বিয়ার কাছে পরাজয় এবং পরে প্যারাগুয়ের সঙ্গে ড্র করায় শঙ্কায় পড়ে গিয়েছিল আর্জেন্টিনার কোয়ার্টারের টিকিট। তবে আজ কাতারকে হারিয়ে ৪ পয়েন্ট নিয়ে, বি গ্রুপ থেকে শেষ আটে পৌঁছে গেলেন মেসি-আগুয়েরোরা।

মতামত দিন

Post Author: newsdesk

A thousand enemies is not enough; a single enemy is. There is nothing as a ‘harmless’ enemy.