করোনায় আরও ২ পুলিশ সদস্যের মৃত্যু

0
208

এএসআই আ. খালেক ও কনস্টেবল আশেক মাহমুদ
ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) আরও দুই সদস্য করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। এ নিয়ে রাজধানীতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে তিনজন পুলিশ মারা গেলেন।

করোনায় আক্রান্ত হয়ে ডিএমপি’র মারা যাওয়া দুজন হলেন- পুলিশ অর্ডার ম্যানেজমেন্টের (পিওএম) উপ-সহকারী পরিদর্শক (এএসআই) আ. খালেক ও ট্রাফিক কনস্টেবল আশেক মাহমুদ।

আ. খালেক আজ বৃহস্পতিবার ভোর রাতে রাজধানীর আরামবাগে পুলিশ হাসপাতালে করোনা নিয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। তার বাড়ি বরগুনার বেতাগী উপজেলার ঝোপখালী গ্রামে। তিনি স্ত্রী, এক ছেলে ও দুই মেয়ে রেখে গেছেন।

অন্যদিকে, আশেক মাহমুদ (৪২) বুধবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে রাজারবাগে কেন্দ্রীয় পুলিশ হাসপাতালে মারা যান। গত ২৬ এপ্রিল করোনার নমুনা পরীক্ষা করা হয়। পরদিন অর্থাৎ ২৭ এপ্রিল তার করোনা পজিটিভ আসে।

ঢাকা মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার (এডিসি-মিডিয়া) আবু আশরাফ সিদ্দিকী দৈনিক আমাদের সময় অনলাইনকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, ‘আমাদের আরও ২ সদস্য মারা গেছেন। একজন ডিএমপির পুলিশ অর্ডার ম্যানেজমেন্টের (পিওএম) এএসআই আব্দুল খালেক। অপরজন হলেন, ট্রাফিক উত্তর বিভাগের কনস্টেবল আশেক মাহমুদ (৪২)।’ এ নিয়ে মোট তিনজনের মৃত্যু হলো করোনায় বলেন তিনি।

উল্লেখ্য, এর আগে গত মঙ্গলবার ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় জসিম উদ্দিন (৪০) নামে এক পুলিশ কনস্টেবল মারা যান। পরের দিন বুধবার সকালে সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউট (আইইডিসিআর) থেকে জানানো হয়, মারা যাওয়া ওই কনস্টেবল করোনা পজিটিভ ছিলেন। দেশে তিনিই প্রথম কোনো পুলিশ সদস্য, যার করোনায় মৃত্যু হয়েছে।

জসিম উদ্দিন (৪০) কুমিল্লার বুড়িচং উপজেলার বাসিন্দা ছিলেন। তার দুই মেয়ে ও এক ছেলে রয়েছে। জসিম উদ্দিন ওয়ারী পুলিশ বিভাগে কর্মরত ছিলেন। ওয়ারী ফাঁড়িতে দায়িত্ব পালনের সময় তিনি করোনায় সংক্রমিত হন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে