এইচএসসি পরীক্ষার ফরম পূরণ ১২ আগস্ট

71


স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: আসন্ন ২০২১ সালের এইচএসসি পরীক্ষার ফরম পূরণ ও পরীক্ষার ফি সংক্রান্ত নির্দেশনা দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড কর্তৃপক্ষ (মাউশি)।

শনিবার (৩১ জুলাই) রাতে দেওয়া এক নির্দেশনায় বলা হয়, কোভিড-১৯ অতিমারির কারণে যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনে ঘরে বসে শিক্ষার্থীদের অনলাইনে ফরম পূরণ করতে হবে। কোনো অবস্থাতেই পরীক্ষার্থী বা তার অভিভাবককে প্রতিষ্ঠানে স্বশরীরে আসতে বলা যাবে না। প্রয়োজনে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করতে পারে।

এতে বলা হয়, মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, ঢাকার অধীনে ২০২১ সালে অনুষ্ঠিতব্য উচ্চমাধ্যমিক সার্টিফিকেট (এইচএসসি) পরীক্ষার অনলাইনে ফরম পূরণ, প্রয়োজনীয় ফি বিজ্ঞান শাখার জন্য ৮০০ টাকা + কেন্দ্র ফি-বিজ্ঞান (ব্যবহারিক ফি সহ) ৩৬০= মোট ১১৬০ টাকা, মানবিক শাখার জন্য ৭৭০ টাকা + কেন্দ্র ফি ৩০০ টাকা= ১০৭০ টাকা এবং ব্যবসায় শিক্ষা শাখার জন্য ৭৭০ টাকা + কেন্দ্র ফি ৩০০ টাকা= ১০৭০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। রেজিস্ট্রেশন নবায়ন ফি (প্রযোজ্য)-১০০ টাকা।

এতে উল্লেখ করা হয়েছে, শিক্ষার্থীদের তথ্য সম্বলিত সম্ভাব্য তালিকা ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইট www.dhakaeducationboard.gov.bd এ ১১ আগস্ট প্রকাশ করা হবে। ১২ আগস্ট থেকে ২৫ আগস্টের মধ্যে প্রতিষ্ঠানের অনলাইনে পরীক্ষার্থী নির্বাচন সম্পন্ন করতে হবে। পরীক্ষার্থীকে ৩০ আগস্টের মধ্যে পরীক্ষার ফি দিতে হবে।

এতে আরও উল্লেখ করা হয়, সকল প্রতিষ্ঠানকে ঢাকা বোর্ডের ওয়েবসাইটে প্রবেশ করে OEMS/Eff এ ক্লিক করে EIIN ও Password দিয়ে Login করে Probable List এ যেতে হবে এবং তালিকা Print করে হার্ডকপিতে লালকালি ব্যবহার করে টিক চিহ্ন দিয়ে পরীক্ষার্থী নির্ধারণ করতে হবে। প্রতিষ্ঠানের বকেয়া পাওনা (পাওনা না থাকলে ‘০’ ) লিখতে হবে। সংশ্লিষ্ট পরীক্ষার্থী বা তার অভিভাবকের সচল মোবকাইল নম্বর নিশ্চিত হয়ে সঠিকভাবে লিখতে হবে। বকেয়া প্রদান, মোবাইল নম্বর সংগ্রহ বা অন্য কোনো কারণে স্বাস্থ্যবিধি মানার স্বার্থে পরীক্ষার্থী বা তার অভিভাবককে স্বশরীরে প্রতিষ্ঠানে আসতে বলা যাবে না। প্রয়োজনে EIIN Password দিয়ে পুনরায় Login করে ওই হার্ডকপি (মুদ্রণকৃত Probable List ) তে টিক চিহ্নিত পরীক্ষার্থীর তথ্য কম্পিউটারে প্রদর্শনকৃত Probable List এর সাথে মিলিয়ে পরীক্ষার্থী নির্বাচন করতে হবে। ফরম পূরণ প্যানেল সংশ্লিষ্ট পরীক্ষার্থীর প্রতিষ্ঠানের মোট বকেয়া পাওনা এন্ট্রি করতে হবে (বকেয়া পাওনা না থাকলে‘০’ টাকা এন্ট্রি করতে হবে) এবং পরীক্ষার্থী বা অভিভাবকের সচল মোবাইল নম্বর সঠিকভাবে এন্ট্রি করতে হবে।

এইচএসসি পরীক্ষা ২০২১ উপলক্ষে কোন নির্বাচনী পরীক্ষা হবে না এবং এ সংক্রান্ত কোন ফি আদায় করা যাবে না। বৈধ রেজিষ্ট্রেশনধারী শিক্ষার্থীরা আবেদন ফরম পূরণ করতে পারবে। কোন পরীক্ষার্থী তার রেজিষ্ট্রেশন ছাড়া কোন বিষয় বা বিষয়সমূহের পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করলে ঐ বিষয়ের পরীক্ষাকোনরূপ যোগাযোগ ছাড়াই বাতিল করা হবে।

নিয়মিত, অনিয়মিত, আংশিক বিষয়ে অকৃতকার্য, শুধু আবশ্যিক বিষয়ে অকৃতকার্য, প্রাইভেট পরীক্ষার্থী, জিপিএ উন্নয়ন পরীক্ষার্থী অর্থ্যাৎ সকল ধরনের পরীক্ষার্থীকে অবশ্যই ফরম পূরণ করতে হবে। ফরম পূরণ ছাড়া পরীক্ষার্থীর ফলাফল প্রকাশের সুযোগ নেই। বোর্ড ফি ও কেন্দ্র ফি প্রদর্শন করাই থাকবে ফলে বোর্ড ফি এন্ট্রি করার প্রয়োজন নেই।

পরীক্ষার্থী বা তার অভিভাবক চলতি বছর সোনালী ব্যাংকের মোবাইল অ্যাপ সোনালী ই-সেবার মাধ্যম হিসেবে নগদ, বিকাশ, রকেট, ইউপে, সোনালী ই-ওয়ালেট ইত্যাদি ব্যবহার করা যাবে। ফি পরিশোধ করার বিস্তারিত বিবরণ ও নির্দেশিকা বোর্ডের ওয়েবসাইটে থাকবে। সোনালী ব্যাংক ও সংশ্লিষ্ট মোবাইল ফিনান্সশিয়াল সার্ভিস (এমফিএস) প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান যেমন- নগদ, বিকাশ, রকেট, ইউপে ফি পরিশোধ সংক্রান্ত নিয়মাবলী বিভিন্ন প্রচার মাধ্যমে প্রচার করবে।

সারাবাংলা/টিএস/এএম





Source link