‘ইসলামিক দল’ বা নারী-বিরোধী ‘শরিয়া আইন’ বাতিল করা হোকঃ তসলিমা

সম্প্রতি ভারতের আদালতে তিন তালাক বিল পাশ হওয়ার পর সোশ্যাল মিডিয়ায় তার প্রশংসাও করতে দেখা গিয়েছিল বাংলাদেশ থেকে বিতাড়িত বিতর্কিত লেখিকা তসলিমা নাসরিনকে। এবার এই বিতর্কিত লেখিকা চান, যে পদ্ধতিতে বিজেপি সরকার ভারতের সংবিধান থেকে ৩৭০ ধারা বিলুপ্ত করেছে, একই পদ্ধতি প্রয়োগ করেই ইসলামিক আইন তুলে দেওয়া হোক।

বিষয়টি নিয়ে সম্প্রতি এক টুইট বার্তা দিয়েছেন তিনি। টুইটারে তিনি লিখেছেন, ‘৩৭০ ধারার মতো অস্থায়ী আইন উঠে যাওয়ারই ছিল। শরিয়া আইন বা ইসলামিক আইনও তুলে দেওয়া উচিত। যে প্রক্রিয়ায় ৩৭০ ধারার বিলুপ্তি সম্ভব হয়েছে তা নারী-বিরোধী শারিয়া আইন সরানোর জন্যও প্রয়োজন। প্রত্যেকের জন্য সমান আইন হওয়া জরুরি।

ভারতীয় সংবিধানের ৩৭০ ধারা বিলুপ্তির পর পুনর্জন্ম হয়েছে জম্মু ও কাশ্মীরের। ‘এক দেশ এক সংবিধান’-এ এখন আরও ঐক্যবদ্ধ ভারতবর্ষ। বিজেপির এমন মতামতের সঙ্গে গলা মিলিয়েছেন তসলিমা নাসরিনও। আর তিনি এবার চান এই প্রক্রিয়াতেই ‘ইসলামিক দল’ বা নারী-বিরোধী শরিয়া আইনও বিলুপ্তির ব্যবস্থা করা হোক।

উল্লেখ্য, বিতর্কিত এ লেখিকা প্রায় দেড়যুগ আগে একইভাবে ইসলামের বিরুদ্ধে লেখালেখি ও কথা বলায় আন্দোলনের মাধ্যমে বাংলাদেশ থেকে বিতাড়িত করেন ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা। পরে এই লেখিকা ভারতে আশ্রয় নিয়েছিলেন। সেখানেও নানা কারণে বিতর্কিত হয়ে ওঠলে একটি অনুষ্ঠানের মঞ্চে প্রকাশ্যে তার উপর হামলা চালায় উপস্থিত জনতা।

মতামত দিন

Post Author: newsdesk

A thousand enemies is not enough; a single enemy is. There is nothing as a ‘harmless’ enemy.