আট বছর পর মিসরের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপন তুরস্কের

0
133

আঙ্কারা, ১৩ মার্চ – মিসরের সঙ্গে প্রায় আট বছর পর কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপন করেছে তুরস্ক। শুক্রবার আঙ্কারা জানিয়েছে, ২০১৩ সালের পর এই প্রথম তাদের মধ্যে কূটনৈতিক যোগাযোগ হয়েছে।

আঞ্চলিক দেশগুলোর সঙ্গে বিচ্ছিন্নতা কাটিয়ে উঠে অন্যান্য প্রতিদ্বন্দ্বীদের সঙ্গে সম্পর্ক উন্নয়নে প্রস্তুত বলে জানিয়েছে তুরস্ক। ফরাসি বার্তা সংস্থা এমন খবর দিয়েছে।

মিসরেরর প্রথম গণতান্ত্রিক প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ মুরসিকে উৎখাত করে সামরিক শাসক ফাত্তাহ আল-সিসি ক্ষমতা দখলের পর আঙ্কারার সঙ্গে কায়ারোর কূটনৈতিক সম্পর্কের নাটকীয়ভাবে অবনতি ঘটে।

এরপর থেকে বিভিন্ন ইস্যুতে এই দুই আঞ্চলিক শক্তির মধ্যে দ্বন্দ্ব লেগেই আছে।

লিবিয়া যুদ্ধেও পরস্পর বিপরীত অবস্থান নিতে গেছে তাদের। কিন্তু নিজেদের মধ্যকার মতানৈক্য দূর করতে হাত বাড়িয়ে দেন তুর্কিশ প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান।

আরও পড়ুন : কূটনীতিকে সফল করতে চাইলে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করতে হবে : ইরান

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও ইউরোপীয় ইউনিয়নের সম্ভাব্য নিষেধাজ্ঞার মুখে প্রতিবেশীদের সঙ্গে নতুন সম্পর্ক স্থাপনে আগ্রহী হতে দেখা গেছে তাকে।

চলতি মাসের শুরুতে পূর্ব ভূমধ্যসাগরে জলসীমা চুক্তি নিয়ে কায়রোর সঙ্গে আলোচনায় প্রস্তুত থাকার কথা জানিয়েছেন তুর্কিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেভলুত কাভুসগলু।

পরবর্তীতে এরদোগান বলেন, সিসির সঙ্গে সম্ভাব্য আলোচনার ভিত্তি তৈরি করতে তিনি প্রাথমিক আলোচনা শুরু করতে চান।

শুক্রবার ইস্তানবুলে জুমার নামাজের পর তিনি বলেন, এই প্রক্রিয়া আরও প্রসারিত ও শক্তিশালী করাই আমাদের ইচ্ছা। এসব গোয়েন্দা কূটনৈতিক ও রাজনৈতিক যোগাযোগের পর যে ফল আসবে, সেটাকে আরও উচ্চ পর্যায়ে নিয়ে যেতে চাই।

তবে উচ্চ-পর্যায়ের যে কোনো আলোচনা নিয়ে স্থানীয় গণমাধ্যমে শুক্রবার কথা বলতে অস্বীকার জানিয়েছেন এক মিসরীয় কর্মকর্তা। তিনি বলেন, চার্জ দ্য অ্যাফেয়ার্স পর্যায়ে দুদেশের মধ্যে কূটনৈতিক মিশন আছে।

সূত্র : যুগান্তর
এন এইচ, ১৩ মার্চ

Source link