breaking news New

রিমান্ডের ভয়ংকর বর্ণনা মিন্নিরঃ পুলিশ ইয়াবা খাওয়ায়ছেন বলে অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ রিফাত হত্যা মামলায় প্রধান সাক্ষী থেকে আসামি বনে যাওয়া আয়শা সিদ্দিকা মিন্নিকে রিমান্ডে নিয়ে অমানুষিক নির্যাতন চালানো হয়েছে। নিজের পরিবারের সদস্যদের কাছে এই নির্যাতনের কথা জানান তিনি।

রবিবার (৪ আগস্ট) মিন্নির মা-বোন সহ পরিবারের সদস্যরা কারাগারে তার সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন। ওই সময় তাদের কাছে রিমান্ডে নিয়ে পৈশাচিক নির্যাতনের বর্ণনা দেন মিন্নি।

মেয়ে মিন্নির মুখ থেকে শোনা নির্যাতনের ঘটনা সাংবাদিকদের বলতে গিয়ে কান্নায় ভেঙে পড়েন মিন্নির মা জিনাত জাহান। তিনি বলেন, এএসআই রিতার নেতৃত্বে মিন্নির ওপর নির্যাতন চালানো হয়। মিন্নিকে বাড়ি থেকে নিয়ে এসে ১২-১৩ ঘণ্টা শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন চালানো হয়।
Ridim City
পুলিশ লাইনে একটি কক্ষে এএসআই রিতার নেতৃত্বে ৪-৫ জন পুলিশ তার ওপর পৈশাচিক নির্যাতন চালায়। এ সময় পানি পান করতে চাইলেও তাকে পানি দেওয়া হয়নি। গ্রেফতার দেখানোর পরে রাতে পানির সঙ্গে ইয়াবা মিশিয়ে তাকে খেতে দেওয়া হয়েছে।

একটি সাদা কাগজে লিখিত বক্তব্য দিয়ে তাকে মুখস্থ করতে পুলিশ বার বার চাপ দিয়েছে। যতক্ষণ মুখস্থ বলতে না পেরেছে ততক্ষণ পর্যন্ত রিতা ও তার সহযোগীরা তাকে নির্যাতন করেছে। পুলিশ মিন্নিকে ভয় দেখিয়ে বলেছে লিখিত বক্তব্য আদালতে না বললে তার বাবা-মা ও চাচাদের ধরে আনা হবে।

উল্লেখ্য, গত ২৬ জুন মিন্নির স্বামী রিফাত শরীফকে প্রকাশ্য দিবালোকে বরগুনার সরকারি কলেজের সামনের সড়কে কুপিয়ে হত্যা করা হয়। সে সময় স্বামীকে বাঁচাতে মিন্নির চেষ্টার ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে সারা দেশে আলোচনার সৃষ্টি হয়। পরবর্তীতে তদন্তের পর পুলিশ জানায় আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি এই হত্যার অন্যতম পরিকল্পনাকারী।

মতামত দিন

0 Comments

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Don't have account. Register

Lost Password

Register