মৃত্যুর দিনই মিজু বলেছিলেন ‘আমাকে আর পাবা না’

মৃত্যুর দিনই মিজু বলেছিলেন ‘আমাকে আর পাবা না’। সোমবার সন্ধ্যা পর্যন্ত বিএফডিসির প্রশাসনিক ভবনের পিছনের বিল্ডিংয়ে ‘অহংকার’ সিনেমার শুটিং করছিলেন অভিনেতা মিজু আহমেদ। এ সময় ছবিটির পরিচালক শাহাদাত হোসেন লিটনের সঙ্গে এ কথাটি বলেছিলেন।

লিটন বলছিলেন, ‘গতকাল (সোমবার) যখন আমার সেটে শুটিং শেষ হয়েছিল তখন আমাকে ডেকে বারবার জিজ্ঞেস করছিলেন, তার কোন শট বাকি আছে কিনা। আমি না করলে তিনি বলেন, দেইখো কিন্তু আমাকে আর পাবা না। এ কথাটা আমাকে তিন-চার বলেন তিনি। তখন আমার বুকে একটা ধাক্কা লাগে, আরে উনাকে তো কোনদিন বলতে শুনেনি। রাতে উনার মৃত্যুর খবর পাবার পর বুঝেছি এ কথা কেন বলেছিলেন। হয়ত পৃথিবীর সকল মানুষের মত তিনিও নিজের মৃত্যুর কথা আগে আঁচ করতে পেরেছিলেন।

পহেলা বৈশাখে মুক্তি পেতে যাওয়া ‘অহংকার’-এ নূতনের বড় ভাইয়ের চরিত্রে অভিনয় করেছেন মিজু আহমেদ। নূতন বলেন, ‘শুটিংয়ের বাইরেও তিনি আমার বড় ভাই ছিলেন। সোমবার শুটিং একসাথে শুটিং করলাম। তারও দুদিন আগে শিল্পী সমিতিতে বসে চা খেতে খেতে আড্ডা মেরেছিলাম। এখনো বিশ্বাস করতে পারছি মিজু ভাই নেই।,

পরিচালক শেখ নজরুল ইসলামের হাত ধরে চলচ্চিত্রে আসেন মিজু আহমেদ। একই পরিচালকের হাত ধরে ওমর সানীর অভিষেক। সানী বলেন, ‘আমরা দুইজনেই একই ওস্তাদের শীষ্য, তাই আলাদা একটা আত্মিক সম্পর্ক ছিল। উনি আমার প্রথম ছবি ‘চাঁদের আলো’র অন্যতম ভিলেন ছিলেন। উনার প্রথম প্রযোজনা ‘মহত’-এর নায়ক ছিলাম আমি। সবমিলিয়ে অসংখ্য স্মৃতি বলে শেষ করা যাবে না।’

শিল্পী সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক অমিত হাসান বলেন, ‘মিজু ভাই দুবার করে শিল্পী সমিতির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, সাধারণ সম্পাদক ও সভাপতি ছিলেন। এর আগে কার্যকরী কমিটির সদস্যও ছিলেন। একটা মানুষ কতটা জনপ্রিয় হলে এতবার নির্বাচিত হন।’

চলচ্চিত্রে আসার আগে কুষ্টিয়ায় নাট্যদলের সাথে যুক্ত ছিলেন। তখনই টেলিসামাদের সাথে তার পরিচয় হয়। টেলিসামাদ বলেন, ‘তার সাথে কুষ্টিয়ায় গিয়ে আমি আর আহমেদ শরীফ বহু শো করেছিলাম। তখন সে শুধু বলত, ভাই আমি কি পারব সিনেমায় অভিনয় করতে? এরপর তো আপনারা জানেন – নাম, দাপটের সাথে অভিনয় করে গেছে। এখনো ভাবতেও পারছি না ও নেই।’

এ প্রজন্মের নায়ক সাইমন বলেন, ‘মিজু ভাইয়ার সাথে আমার প্রথম কাজ ছিল আটকে থাকা ‘রানা প্লাজা’। এরপর তো ‘পুড়ে যাওয়া মন’সহ আরো কিছু ছবিতে কাজ করেছি। লাখো দর্শক না শুধু আমিও তার একজন ভক্ত ছিলাম।’

Print Friendly, PDF & Email
 

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password

%d bloggers like this: