breaking news New

বিশ্বকাপে পাক-ভারত ম্যাচ নিয়ে এই প্রথম মুখ খুলল আইসিসি

স্পোর্টস ডেস্ক : ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে কোন কিছু ঘটলে তা শুধু নির্দিষ্ট ঘটনার মাঝেই সীমাবদ্ধ থাকে না। এর উত্তাপ ছড়ায় দু’দেশের সকল অঙ্গনে। এর অন্যতম আরেকটি প্রমাণ হলো, তিনদিন আগে ঘটে যাওয়া জম্মু কাশ্মিরের পুলওয়ামায় হামলার ঘটনার আঁচ গিয়ে ঠেকেছে আগামী মে মাসের ২৯ তারিখে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া বিশ্বকাপ ক্রিকেটের ভারত-পাকিস্তান ম্যাচে। ম্যানচেস্টারে ১৬ জুন পরস্পরের মোকাবেলা করবে দুই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী।

যদিও কাশ্মিরের এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ভারতের সাবেক অনেক ক্রিকেটার বিশ্বকাপে ম্যাচটি বয়কট করে দিতে বলেছেন। প্রাক্তন ক্রিকেটার হারভাজন সিং বলেছেন, ‘পাকিস্তানের সাথে ম্যাচটি ভারতের বয়কট করা উচিত। জওয়ানদের আত্মার শান্তি পেতে এই কাজটি করা উচিত। পাকিস্তানের সাথে ম্যাচটি না খেললেও ভারতের নকআউটে উঠার সমর্থ্য রয়েছে।’ তার বক্তব্যের পর ক্রিকেট মহলে নিয়ে অনেক আলোচনা-সমালোচনার ঝড় শুরু হয়।

বিশ্বকাপে পাক-ভারত ম্যাচ নিয়ে এই প্রথম মুখ খুলল আইসিসি। পাকিস্তানের ম্যাচ নিয়ে স্পষ্ট করল ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)। মঙ্গলবার ভারতীয় জওয়ানদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে ক্রিকেট কাউন্সিলের প্রধান নির্বাহী ডেভিড রিচার্ডস বলেন, ‘কাশ্মিরে হামলার ক্ষতিগ্রস্থদের প্রতি আমাদের সহানুভ’তি রয়েছে। কিন্তু বিশ্বকাপে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ না হওয়ার কোন কারণ নেই। নির্দিষ্ট সময়ে খেলা হবে। খেলা মানুষকে বিচ্ছিন্ন নয়, বরং ইউনিটি গড়তে সাহায্য করে।’ তিনি বলেন, ম্যাচটি বাতিল হবে এমন কোন আশঙ্কা এখনো তৈরি হয়নি।

৩০ মে ইংল্যান্ড ও ওয়েলসের মাটিতে বসছে বিশ্বকাপ ক্রিকেটের ১২তম আসর। ১৬ জুন ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে ভারত-পাকিস্তানের মহারণ। এই ম্যাচের দিকে তাকিয়ে যখন ক্রিকেটপ্রেমীরা, তখনই আত্মঘাতি হামলার ঘটনায় নানা প্রশ্ন দেখা দেয় ম্যাচটি নিয়ে।

হরভজন সিংয়ের বক্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের এক কর্মকর্তা বলেছেন, হরভজন তার দৃষ্টিভঙ্গি থেকে কথা বলেছেন, কিন্তু যদি সেমি ফাইনাল বা ফাইনালে আমরা পাকিস্তানের মুখোমুখী হই? তাহলে কি তাদের ম্যাচট ছেড়ে দেব? কাজেই আমরা বাস্তবভিত্তিক চিন্তা করছি।

মতামত দিন

0 Comments

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Don't have account. Register

Lost Password

Register