‘বিনাবিচারে কারারুদ্ধরা ক্ষতিপূরণ চাইতে পারেন’

সংসদ প্রতিবেদক :

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘বিনাবিচারে কারারুদ্ধরা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ ও রাষ্ট্রের কাছে ক্ষতিপূরণ চাইতে পারেন। সে বিধান আইনে আছে।’

বুধবার বিকেলে জাতীয় সংসদের চতুর্দশ অধিবেশনে প্রধানমন্ত্রীর জন্য নির্ধারিত প্রশ্নোত্তর পর্বে নুরুল ইসলাম মিলনের টেবিলে উত্থাপিত প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে বিকেল ৩টা ২৫ মিনিটে অধিবেশন শুরু হয়।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘যারা কারাগারে আটক আছেন, তাদের বিরুদ্ধে মামলা চলমান আছে। এসব মামলা তদন্তাধীন বা বিচারাধীন পর্যায়ে থাকতে পারে। বিচারিক পর্যায়ে দীর্ঘসূত্রতা থাকলে এসব মামলায় কারাগারে আটক ব্যক্তিদের জামিনে মুক্তি দেওয়ার বিষয়টি সংশ্লিষ্ট বিচারকের এখতিয়ার।’

তিনি জানান, সরকার এসব মামলার দ্রুত বিচারের লক্ষ্যে বিভিন্ন ব্যবস্থা নিচ্ছে। দ্রুত বিচার আদালত ও ট্রাইব্যুনাল গঠনসহ মামলার বিচার ত্বরান্বিত করার জন্য বিভিন্ন অবকাঠামোগত এবং সংস্থারমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে।

সংসদ নেতা বলেন, ‘অপরাধীরা যাতে বিনাবিচারে দীর্ঘদিন আটক না থাকে সে লক্ষ্যে বর্তমান সরকার তাদের দ্রুত বিচার সম্পন্ন কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। বর্তমান সরকার দীর্ঘদিন আটক অপরাধীদের সংখ্যা জানার জন্য তাদের পরিসংখ্যান নিয়ে তাদের বিষয়ে ব্যবস্থা গ্রহণের উদ্যোগ নিচ্ছে। আমি জেলে থাকা অবস্থায় জানতে পারি, অনেক মানুষ বিনা অপরাধে জেলে আটক আছে। এসব ব্যক্তিকে অবিলম্বে জেল থেকে মুক্ত করা প্রয়োজন। কিছু এনজিও এবং সরকারি জাতীয় আইনগত সহায়তা সংস্থার মাধ্যমে এসব ব্যক্তিকে কারাগার থেকে মুক্ত করার জন্য ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে এবং এ প্রক্রিয়া চলমান আছে।’

তিনি আরো বলেন, ‘যারা বিনাবিচারে আটক আছে তারা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে ক্ষতিপূরণ চাইতে পারেন। কেউ যদি রাষ্ট্রের কাছে ক্ষতিপূরণ চাওয়ার ইচ্ছা পোষণ করেন, তবে আইনে সে বিধানও আছে।’

Print Friendly, PDF & Email
 

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password

%d bloggers like this: