খানসামায় ধান কাটার ধুম, ধান মাড়াইয়ের মাড়াইকল জনপ্রিয় হচ্ছে

মোঃ তারিকুল ইসলাম চৌধুরী,খানসামা,(দিনাজপুর)প্রতিনিধি ঃ দিনাজপুর খানসামায় ধুম পড়েছে বোরো ধান কাটাই ও মাড়াইয়ের ধান শুকিয়ে গোলায় মজুদ রাখতে। উপজেলায় চলতি বোরো মৌসুমে ধান মাড়াইকল মালিকদের দম ফেলানোর ফুরসোদ নেই। চাষীদের ধান মাড়াইকল দিনে দিনে জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। কিছু জায়গায় আবার ধান কাঠের পিড়িতে/পিড়ায় মাড়াই করাও দেখা যায়। বেশির ভাগ কৃষক, আধুনিক প্রযুক্তির ধান মাড়াই কলের সুবিধা ভোগ করে ধান শুকিয়ে গোলাজাত করে নিচ্ছে। উপজেলার ৬টি ইউপি’র ধান চাষিদের মধ্যে এই মাড়াই কলের ব্যাপক চাহিদাও বেড়েছে। কৃষকরা ধান ক্ষেতে, বাড়ির খুলতি বাড়ি/আঙ্গিনায়, রাস্তার ধারে রেখে ধান মাড়াই করে চলছে। মাড়াই কল মালিকরা অতিদ্রুত কৃষকদের ধান মাড়াই করে দিচ্ছেন। এই ভাবে দিনভর চলছে ধান মাড়াইয়ের কাজ। এই উপজেলায় ধান মাড়াইকলের মালিকরা বিঘা প্রতি ৭শ’ টাকা থেকে ৮শ’ টাকা নিয়ে থাকেন। প্রতি বছর এই ধানকাটা মাড়ার মৌসুমে শ্রমিক সংকট দেখা যায়। কারণ এই সময় বেশি ভাগ শ্রমিকরা অধিক লাভের আশায় অন্য জেলা গুলোতে কাজ করতে যান। আবার কোন কোন শ্রমিক ইউপি’র কর্মসৃজন কাজ ছাড়াও আরো অনেক কাজে ব্যস্ত থাকেন। এই অবস্থায় কৃষক বেকায়দায় পড়ে শ্রমিকদের বেশি টাকা দিয়ে ধান কেটে নিচ্ছেন। কৃষকরা ধান মাড়াই করে শুকিয়ে বা ভিজা অবস্থায় বাজারে বিক্রি করে শ্রমিকদের টাকা বুঝিয়ে দেন। এই ব্যাপারে উপজেলা কৃষি অফিসার, কৃষিবিদ এজামুল হক বলেন-মাড়াই যন্ত্রের সুবিধা ভোগ করে উপজেলার কৃষকরা প্রযুক্তি গত অনেক দুরে এগিয়ে গেছেন।

মতামত দিন

0 Comments

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Don't have account. Register

Lost Password

Register