আসলাম চৌধুরীকে জেলে রেখে ক্ষমতাকে চিরস্থায়ী করা যাবে না

প্রেস বিজ্ঞপ্তি: বার কাউন্সিলের সাবেক সদস্য এডভোকেট কবির চৌধূরী বলেছেন, ‘আসলাম চৌধুরীসহ সাহসী জনপ্রিয় নেতাদেরকে জেলখানায় রেখে শেখ হাসিনা ক্ষমতাকে চিরস্থায়ী করতে পারবে না। আসলাম চৌধুরীর অপরাধ তিনি গণতন্ত্র পুনপ্রতিষ্ঠার আন্দোলনে চট্টগ্রামে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন। তাই যেকোনমূল্যে আসলাম চৌধুরীকে থামিয়ে দিতে তার বিরুদ্ধে মিথ্যা ও ভুয়া অভিযোগ এনে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলা দিয়ে কারাগারে রাখঅ হয়েছে। অথচ শেখ হাসিনার ছেলে জয় মেন্দি এন সাফাদির সঙ্গে বৈঠক করে এবং ইহুদি মেয়েকে বিয়ে করে ইসলামী মূল্যবোধের প্রতি কুঠারাঘাত করেছে। নিজের ঘরে ইহুদি রেখে তিনি অন্য জনকে মিথ্যা অপবাদ দিচ্ছেন।’ বৃহস্পতিবার দি কিং অব চিটাগং এ চট্টগ্রাম উত্তর জেলা বিএনপির ইফতার মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। প্রধান অতিথি অবিলম্বে আসলাম চৌধুরীসহ সকল বিএনপি নেতাকর্মীদের মুক্তি দাবি করেন। কবির চৌধূরী আরো বলেন, ‘এ সরকার নির্বাচনী ব্যবস্থাকে ধ্বংস করে দিয়েছে। নিজেদের পৌষ্য নির্বাচন কমিশনের মাধ্যমে দলীয় লোকজনকে বিভিন্ন নির্বাচনে জোরপূর্বক জিতিয়ে দেশে একনায়কতন্ত্র কায়েম করছে। ইউপি ও বিগত নির্বাচনগুলো প্রমান করে নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধঅয়ক সরকারের অধীনে ছাড়া জাতীয় নির্বাচন নিরপেক্ষ হবে না।’ উত্তর জেলা বিএনপির সাবেক সহ সভাপতি এম এ হালিমের সভাপতিত্বে এবং নুরুল আমিনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত ইফতার মাহফিলে বিশেষ অতিথি ছিলেন নুরী আরা ছাফা, শ্রমিকদল নেতা এম এ নাজিম,সাবেক সহ সভাপতি অধ্যাপক ইউনুস চৌধুরী, চাকসু ভিপি মো.নাজিম উদ্দিন, আলহাজ্ব ছালাউদ্দিন,ইছহাক কাদের চৌধুরী, অধ্যাপক ড.ছিদ্দিক আহমেদ, ডা.খুরশীদ জামিল,এডভোকেট আবদুস সাত্তার, শেখ মো.মহিউদ্দিন,সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নুর মোহাম্মদ, সেকান্দর চৌধুরী, এডভোকেট আবু তাহের, আবদুল আওয়াল, অধ্যাপক জসীম উদ্দিন চৌধুরী, জাহিদুল করিম কচি। বক্তব্য রাখেন সেলিম চেয়ারম্যান,আবু আহমেদ হাসনাত, ইউসফ নিজামী, কুতুব উদ্দিন খান, মোস্তফা কামাল পাশা, এহেছান চেয়ারম্যান,কাজী সালাউদ্দিন, সোলায়মান মঞ্জু, সরওয়ার সেলিম, নওয়াব মিয়া চেয়ারম্যান, মাহবুব ছাফা কন্ট্রাক্টর, মোবারক হোসেন কাঝ্চন, জাকির হোসেন, শাহীদুল ইসলাম চৌধুরী, আবদুস শুক্কুর, আহসানুল কবির তালুকদার, অধ্যাপক কুতুব উদ্দিন বাহার, জহিরুল আলম, জামসিদুল আলম, শামসুল আলম আজাদ, মোরসালীন, মো.নাছির উদ্দিন, আইয়ূব খান, ফাতেমা বাদশা, ফজলুল হক, জান্নাতুল ফেরদৌস, শফিউল আলম চৌধুরী,মুসলেহ উদ্দিন, এইচ এম নুরুল হুদা, রেজোয়ান নুর সিদ্দিকী উজ্জ্বল, রহমত উল্লাহ মেম্বার, ফয়েজ উল্লাহ, কবির চেয়ারম্যান, নুরুল হুদা সোহেল,আওরঙ্গজেব মোস্তফা,নেছারুল হক নাজমুল হক, মানুনুর রশিদ, নিউটন দত্ত,কে আলম, ফোরকান উদ্দিন রিজভী, এইচ এম জসীম উদ্দিন, মোহাম্মদ আলম, ফজলুল হক, ফজল বারী, মাইউদ্দিন মনি, শফিউল আলম চৌধুরী, জাহিদুল আবসার জুয়েল, আনিস আক্তার টিটু, মাহবুব হক শিমুল, আজিজ উল্লাহ, ওসমান গনি, রোকন সিকদার, মনিরুল ইসলাম জনি, ইরফানুল হক রকি, ওমর ফারুক ডিউক প্রমুখ।কবির চৌধুরী বলেন, ‘অবৈধ সরকার জঙ্গী গ্রেফতারের নামে বিএনপি ও বিরোধীয়দের গ্রেফতার করেছে। পুলিশ নিরাপরাধ মানুষজনকে গ্রেপ্তার করে বাণিজ্য তৈরী করেছে। এছাড়া এ সরকারের আদেশে দেশে বিচার বর্হিভ’ত হত্যা বেড়ে চলেছে। এর খড়গ গিয়ে পড়েছে বিএনপির উপর। ইতিহাস থেকে আওয়ামী লীগকে শিক্ষা নিতে হবে। কারণ জোর করে ক্ষমতায় থাকা সম্ভব না। শীঘ্রই বেগম জিয়ার নেতৃত্বে এদেশে গণতন্ত্র ফিরে আসবে।

Print Friendly, PDF & Email
 

Notice: Uninitialized string offset: 0 in /home/joynalbd/public_html/bdnewstimes.com/wp-content/themes/bdnewstimes/bothsidebar.php on line 160

0 Comments

Leave a Reply

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password

%d bloggers like this: